A Reliable Media

পাবনায় আ.লীগ নেতাকে কুপিয়ে-গুলি করে হত্যা

পাবনায় আ.লীগ নেতাকে কুপিয়ে-গুলি করে হত্যা

অনলাইন ডেস্ক: পাবনা শহরের অনন্ত মোড় এলাকায় ইউপি সদস্য ও আওয়ামী লীগ নেতা বকুল শেখকে (৩২) কুপিয়ে ও গুলিতে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা।

শুক্রবার (১১ ডিসেম্বর) সন্ধ্যা ৭টার দিকে এই ঘটনা ঘটে।

নিহত বকুল শেখ পাবনা সদর উপলোর দক্ষিণ রামচন্দ্রপুর এলাকার দুলাল শেখের ছেলে। তিনি দোগাছি ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

নিহত বকুলের বাবা দুলাল শেখ জানান, দীর্ঘদিন ধরে অনন্ত মোড়ের সিএনজিচালিত অটোরিকশা ও ব্যাটারিচালিত অটোবাইকের চাঁদা তুলছে এলাকার চিহ্নিত সন্ত্রাসী মোখলেস ও তার ছেলে রানা। এতে তীব্র যানজট সৃষ্টি হওয়ায় এলাকাবাসীকে সঙ্গে নিয়ে সম্প্রতি চাঁদাবাজি বন্ধ করে অটোস্ট্যাণ্ড তুলে দেয় বকুল। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে শুক্রবার সন্ধ্যায় তারা দলবল নিয়ে বকুলকে প্রকাশ্যে গুলি করে ও কুপিয়ে গুরুতর জখম করে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

পাবনা জেলা আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক আব্দুল আহাদ বাবু বলেন, বকুল আওয়ামী লীগের নিবেদিত প্রাণ কর্মী। অন্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদী কণ্ঠ হওয়ায় ইউপি সদস্য হিসেবেও জনপ্রিয় ছিল। হত্যাকারী মোকলেস গং চিহ্নিত চাঁদাবাজ। তারা জামায়াত ও বিএনপির রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত। পুলিশের সামনেই একজন জনপ্রতিনিধিকে প্রকাশ্যে এমন নৃশংস হত্যা মেনে নেয়া যায় না। আমরা হত্যাকারীদের দ্রুত গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাই।

দোগাছি ইউপি চেয়ারম্যান আলী হাসান বলেন, বকুল শেখ আমাদের ইউনিয়নের অত্যন্ত জনপ্রিয় সদস্য। পূর্বপরিকল্পিত ভাবে তাকে হত্যা করা হয়েছে। আমরা এর বিচার চাই।

বকুলের মৃত্যুর খবরে অনন্ত মোড় এলাকায় চরম উত্তেজনা দেখা দেয়। এলাকাবাসী বিক্ষোভ মিছিল বের করলে পরিস্থিতি অবনতির আশঙ্কায় পুলিশ তাতে বাধা দেয়। এ সময় বিক্ষুব্ধরা পুলিশের ওপর ইট পাটকেল ছুড়লে পুলিশ ধাওয়া দিয়ে মিছিল ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

তবে তাদের সামনে হত্যাকাণ্ড ঘটেছে এমন অভিযোগ অস্বীকার করে পুলিশ।

পাবনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাসুদ আলম জানান, খবর পেয়ে পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে পাবনা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। আধিপত্য বিস্তারের জেরে এ হত্যা। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

editor

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *